মুসলিম জাহান

মুসলিম জাহান

ফিলিপাইনে মুসলমানেরা স্বায়ত্তশাসন পেতে যাচ্ছে

ফিলিপাইনে মুসলমানদের জন্য আলাদা একটি স্বায়ত্তশাসিত এলাকা ঘোষিত হ’তে যাচ্ছে। প্রেসিডেন্ট বেনিগনো অ্যাকুইনো দেশটির কংগ্রেসকে মুসলমানদের জন্য স্বায়ত্তশাসিত একটি এলাকা ঘোষণার জন্য দ্রুত একটি আইন প্রণয়নের নির্দেশ দিয়েছেন। পাঁচ দশকের সহিংসতার অবসান ঘটাতে এই উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে। দু’পক্ষের সম্মতিতে গত মার্চে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। দীর্ঘদিনের সহিংসতায় দেশটির এক লাখ ২০ হাযারের বেশী মানুষ নিহত ও ২০ লাখ লোক শরণার্থীতে পরিণত এবং উন্নয়ন কার্যত বন্ধ হয়ে যায়। অ্যাকুইনো চান, যে কোনভাবে হোক ২০১৬ সালের মধ্যে এটি সম্পন্ন হোক।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী ক্যাথলিক যাজকের ইসলাম গ্রহণ

যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী ক্যাথলিক ধর্মযাজক কার্ডিনাল থিওডোর ম্যাককারিক ইসলাম গ্রহণ করেছেন। তিনি ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত ওয়াশিংটনের আর্চবিশপ হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন। ২০০১ সালে তিনি ক্যাথলিকদের শীর্ষস্থানীয় ধর্মযাজক বা কার্ডিনাল পদে উন্নীত হন। গত ১০ই সেপ্টেম্বর ওয়াশিংটনে এক সংবাদ সম্মেলনে পরোক্ষভাবে তিনি ইসলাম গ্রহণের ঘোষণা দেন। ‘মুসলিম পাবলিক অ্যাফেয়ার্স কাউন্সিল’ আয়োজিত এক অনুষ্ঠান তিনি শুরু করেন ‘বিসমিল্লাহির রহমানির রহীম’ পাঠ করে।

ম্যাককারিক বলেন, ক্যাথলিক ধর্মের সামাজিক শিক্ষা হচ্ছে মানবিক মর্যাদা। আপনি যদি কুরআন অধ্যয়ন করেন অথবা ইসলাম নিয়ে পড়াশোনা করেন তবে দেখবেন যে, মুহাম্মাদ (ছাঃ) এটাই শিক্ষা দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘আমরা সবাই খারাপের বিরুদ্ধে, হত্যাযজ্ঞের বিরুদ্ধে এবং ধ্বংসের বিরুদ্ধে। আল্লাহ এই কাজে আপনাদের সহায়তা করুন।’ তিনি আরো বলেন, ‘আমরা বিশ্বাস করি ইসলাম এমন একটা ধর্ম যা সকল মানুষকে সাহায্য করে, তাদেরকে হত্যার নির্দেশ দেয় না’।

ইসলাম গ্রহণ সঊদী আরবে আমার সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি

-মার্কিন পাইলট

সঊদী আরবে মাত্র এক মাস ধর্মীয় পরিবেশে হৃদ্যতাপূর্ণ আচরণে মুগ্ধ হয়ে ইসলাম গ্রহণ করেছেন মার্কিন ব্যবসায়ী ও বিমানচালক রিচার্ড প্যাটারসন। এখন তার নাম আব্দুল আযীয। যরূরী রোগী সেবার একটি অভিজাত কোম্পানীর মালিক তিনি। আব্দুল আযীয বলেন, ‘আমি সঊদী আরবে এসেছিলাম ব্যবসায়িক কারণে। কিন্তু আমি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে সর্বশক্তিমান আল্লাহ্র সাথে আমার জীবনের সেরা ব্যবসাটি করেছি। তিনি যখন নিজ দেশে ছিলেন, তখন টিভি চ্যানেলগুলোতে ইসলাম সম্পর্কে অনেক নেতিবাচক কথা শুনতেন। এগুলোর উদ্দেশ্য ছিল ইসলামের আসল চিত্র বিকৃত করা। অথচ সঊদী আরবের ধর্মীয় সমাজই তাকে সবচেয়ে বেশী আকর্ষণ করেছে বলে জানান তিনি।

বিমানে যরূরী রোগী বহনে ছাত্রদের প্রশিক্ষণ দিতে সঊদী রেড ক্রিসেন্টের সাথে এক মাসের চুক্তিতে সঊদী আরব আসেন তিনি এবং এক পর্যায়ে ইসলাম গ্রহণ করেন।

আব্দুল আযীয তার ইসলাম গ্রহণ অনুষ্ঠানে আরো বলেন, ‘ইসলাম সম্পর্কে বোঝার জন্য শুধু পড়াশুনা করা যথেষ্ট নয়। যারা প্রতিনিধিত্ব করে (ইসলাম সম্পর্কে ভাল জ্ঞান রাখে) তাদের সাথে সাক্ষাতের মাধ্যমে এর অন্তর্নিহিত চেতনা সত্যিকারভাবে প্রতিফলিত হয়’। তিনি নিজেকে ভাগ্যবান বিবেচনা করে বলেন যে, তিনি সঊদী আরবে তার মুসলিম বন্ধুদের সাথে সাক্ষাৎ ও সাথী হওয়ার মাধ্যমে আবিষ্কার করতে পেরেছিলেন ইসলাম ন্যায় ও সহনশীলতার ধর্ম। ‘মুসলমানরা বিশেষতঃ সঊদীদেরকে তিনি বিনয়ী ও মুক্ত মনের’ উল্লেখ করে বলেন, তিনি তাদের একটি পরিবারের মত অনুভব করেন। তাদের সাথে থাকা অবস্থায় তাদের কাছ থেকে বিছিন্নতা বা নিষ্ঠুরতার কোন অভিজ্ঞতা তিনি পাননি। সঊদী সমাজের ধার্মিকতা তাকে সবচেয়ে বেশী আকৃষ্ট করেছে। ধর্ম তাদের প্রাত্যহিক জীবনের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসাবে সম্পর্কযুক্ত থাকতে সাহায্য করে।

তিনি বলেন, ‘আমি আশা করি আমার অভিজ্ঞতা থেকে আমার সব অমুসলিম সহকর্মীদের মাঝে ইসলাম সম্পর্কে দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন আনতে পারব’। তিনি সমালোচনা করে বলেন যে,  মুসলিম ব্যবসায়ীরা তাদের অমুসলিম সাথীদের এই মহামান্বিত ধর্মের প্রবেশ করানোর ব্যাপারে মোটেও অগ্রগামী নয়। তিনি বলেন, ‘আমরা অন্ততঃ আমাদের ব্যবসায়ী সভায় অমুসলিম সহকর্মীদের ইসলামী বই দিতে পারি, যা তাদের মাঝে ইসলামের প্রকৃত চিত্র তুলে ধরতে সাহায্য করবে’।

দুর্নীতির কারণে প্রতি বছর মারা যায় ৩৬ লাখ মানুষ

দুর্নীতি ডেকে আনছে দারিদ্র্য। আর দরিদ্র দেশগুলোতে প্রতিবছর দারিদ্রে্যর কারণে মারা যাচ্ছে প্রায় ৩৬ লাখ মানুষ। যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক একটি দারিদ্র্য দূরীকরণ সংস্থার হিসাব দিয়েছে, দরিদ্র দেশগুলো থেকে প্রতিবছর প্রায় ১ লাখ কোটি ডলার দুর্নীতির মাধ্যমে তুলে নেয়া হয় এবং দুর্নীতির কারণে এই বিপুলসংখ্যক হতভাগ্য মানুষ মৃত্যুর শিকার হয়। সংস্থাটি তাদের প্রতিবেদনে জানায়, দুর্নীতি ও অপরাধ চরম পর্যায়ের দারিদ্র্য মোকাবেলায় দুই দশকের অগ্রগতিকে হুমকির মুখে ফেলেছে। নামসর্বস্ব প্রতিষ্ঠানের নামে অর্থ লুট ও মুদ্রা পাচারও এসব দুর্নীতির মধ্যে রয়েছে। কোন পদক্ষেপ না নিয়ে গোপনীয়তা রক্ষা করায় এসব দুর্নীতি আরো শক্তিশালী হয়েছে।