সংগঠন সংবাদ

আন্দোলন

যেলা সম্মেলন

সকল পথ ছেড়ে আল্লাহর পথে ফিরে আসুন!

-মুহতারাম আমীরে জামা‘আত

কুষ্টিয়া-পূর্ব, ২২ ডিসেম্বর শনিবার : অদ্য বাদ আছর ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ ও ‘বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘ’ কুষ্টিয়া-পূর্ব সাংগঠনিক যেলার উদ্যোগে শহরের পাবলিক লাইব্রেরী ময়দানে অনুষ্ঠিত যেলা সম্মেলনে প্রদত্ত প্রধান অতিথির ভাষণে মুহতারাম আমীরে জামা‘আত প্রফেসর ড. মুহাম্মাদ আসাদুল্লাহ আল-গালিব নেতৃবৃন্দের প্রতি উপরোক্ত আহবান জানান। তিনি বলেন, ধর্মনেতা ও সমাজ নেতাগণ নানা মত ও পথে বিভক্ত। প্রত্যেকে নিজ নিজ মতে দৃঢ়। অথচ মুক্তির পথ রয়েছে কেবল ছিরাতে মুস্তাক্বীমে। আর তা নিহিত রয়েছে পবিত্র কুরআন ও ছহীহ হাদীছের নিঃর্শত অনুসরণের মধ্যে। ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন’ মানুষকে সে পথেই আহবান জানায়।

যেলা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি কাযী আব্দুল ওয়াহহাবের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় সেক্রেটারী জেনারেল অধ্যাপক মাওলানা নূরুল ইসলাম। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় শূরা সদস্য ও মাসিক আত-তাহরীক-এর সহকারী সম্পাদক ড. মুহাম্মাদ কাবীরুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় মুবাল্লিগ মুহাম্মাদ শরীফুল ইসলাম, কুষ্টিয়া-পশ্চিম যেলা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি মুহাম্মাদ গোলাম যিল কিবরিয়া, যেলা ‘আন্দোলন’-এর সহ-সভাপতি মুহাম্মাদ হাশিমুদ্দীন ও রাজবাড়ী যেলার নতুন আহলেহাদীছ মুহাম্মাদ আব্দুল গফুর প্রমুখ।

আল্লাহর নিকট আত্মসমর্পণ করুন

কুমিল্লা ৫ জানুয়ারী, শনিবার : অদ্য বাদ আছর ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ ও ‘বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘ’ কুমিল্লা যেলার উদ্যোগে শহরের টাউন হল ময়দানে অনুষ্ঠিত যেলা সম্মেলনে প্রদত্ত প্রধান অতিথির ভাষণে মুহতারাম আমীরে জামা‘আত প্রফেসর ড. মুহাম্মাদ আসাদুল্লাহ আল-গালিব দেশের নেতৃবৃন্দ ও যুবকদের প্রতি উপরোক্ত আহবান জানান। তিনি বলেন, যুবশক্তি হ’ল দেশের মূল শক্তি। রাষ্ট্র ও সমাজ নেতাগণ যদি তাদেরকে তাদের হীন স্বার্থের ক্রীড়নক হিসাবে ব্যবহার করেন, তাহ’লে পরিণামে তারাই এর তিক্ত ফল ভোগ করবেন। অতএব তাদেরকে সৎ, যোগ্য ও চরিত্রবান হিসাবে গড়ে তোলার জন্য সমাজ সচেতন ব্যক্তিদের সক্রিয় ভাবে এগিয়ে নেওয়া কর্তব্য।

যেলা ‘আন্দোলন’-এর প্রধান উপদেষ্টা হাফেয মাওলানা আব্দুল মতীন সালাফীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় প্রচার ও প্রশিক্ষণ সম্পাদক এবং মাসিক আত-তাহরীক সম্পাদক ড. মুহাম্মাদ সাখাওয়াত হোসাইন ও আল-মারকাযুল ইসলামী আস-সালাফী নওদাপাড়া, রাজশাহীর ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মাওলানা আব্দুর রাযযাক বিন ইউসুফ। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ঢাকা যেলা ‘আন্দোলন’-এর সাবেক সভাপতি মাওলানা আমানুল্লাহ বিন ইসমাঈল, সাধারণ সম্পাদক তাসলীম সরকার, নরসিংদী যেলা ‘আন্দোলন’-এর সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জালালুদ্দীন, যেলা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি মাওলানা ছফিউল্লাহ প্রমুখ। উল্লেখ্য, টাউন হলে মহিলাদের পৃথক বসার ব্যবস্থা ছিল।

এলাকা সম্মেলন

যারা কুরআনে অনুসারী হবে তারাই সফলকাম হবে

-মুহতারাম আমীরে জামা‘আত

কাকনহাট, রাজশাহী ১২ জানুয়ারী শনিবার : অদ্য বাদ আছর ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ ও ‘বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘ’ কাকনহাট এলাকার উদ্যোগে কাকনহাট হাইস্কুল ময়দানে অনুষ্ঠিত এলাকা সম্মেলনে প্রদত্ত প্রধান অতিথির ভাষণে মুহতারাম আমীরে জামা‘আত প্রফেসর ড. মুহাম্মাদ আসাদুল্লাহ আল-গালিব উপরোক্ত কথা বলেন। তিনি বলেন, কুরআন ও হাদীছ কখনোই মানুষকে হিংসা-বিদ্বেষে প্ররোচিত করে না। ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ পবিত্র কুরআন ও ছহীহ হাদীছের আলোকে এদেশের সমাজ ও রাষ্ট্র গড়ে তোলার আন্দোলন করে থাকে।

এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব আহলহাজ্জ শরীফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন আল-মারকাযুল ইসলামী আস-সালাফী, নওদাপাড়া, রাজশাহীর অধ্যক্ষ মাওলানা আব্দুর রাযযাক বিন ইউসুফ, সোনামণি-র কেন্দ্রীয় পরিচালক ইমামুদ্দীন ও সঊদী আরবের রিয়াদ শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আব্দুল বারী।

কর্মী প্রশিক্ষণ

নওদাপাড়া, রাজশাহী ১১ জানুয়ারী শুক্রবার : অদ্য বাদ আছর ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ রাজশাহী মহানগরীর উদ্যোগে নগরীর নওদাপাড়াস্থ দারুলহাদীছ বিশ্ববিদ্যালয় (প্রস্তাবিত) জামে মসজিদে এক কর্মী প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। মহানগর ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি মাওলানা রুস্তম আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত প্রশিক্ষণে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মুহতারাম আমীরে জামা‘আত প্রফেসর ড. মুহাম্মাদ আসাদুল্লাহ আল-গালিব। অন্যান্যের মধ্যে প্রশিক্ষণ প্রদান করেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় দফতর ও যুববিষয়ক সম্পাদক অধ্যাপক আমীনুল ইসলাম এবং কেন্দ্রীয় মুবাল্লিগ মুহাম্মাদ শরীফুল ইসলাম। প্রশিক্ষণে উদ্বোধনী ভাষণ পেশ করেন মহানগর ‘আন্দোলন’-এর সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার সুলতান আহমাদ। অনুষ্ঠানের সঞ্চালক ছিলেন মহানগর ‘আন্দোলন’-এর সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ সিরাজুল হক।

শীতবস্ত্র বিতরণ

‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’-এর সমাজকল্যাণ কার্যক্রমের অংশ হিসাবে ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ ও ‘বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘ’ রাজশাহী মহানগরীর উদ্যোগে গত ২৯ ডিসেম্বর ’১২ ও ৭ জানুয়ারী ’১৩  দুই দিন নগরীর বিভিন্ন বস্তি এলাকায় শীতার্ত গরীব-অসহায় মানুষের মাঝে প্রায় ২৫০০ পিস শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়। এর মধ্যে ছিল কম্বল, সুয়েটার, জ্যাকেট, চাদর ও অন্যান্য পোষাক। উক্ত শীতবস্ত্র বিতরণ কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় দফতর ও যুববিষয়ক সম্পাদক অধ্যাপক আমীনুল ইসলাম, প্রচার ও প্রশিক্ষণ সম্পাদক এবং মাসিক আত-তাহরীক সম্পাদক ড. মুহাম্মাদ সাখাওয়াত হোসাইন, ‘যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল বারী, সাবেক কেন্দ্রীয় অর্থ সম্পাদক মোফাক্ষার হোসাইন, মহানগর ‘আন্দোলন’-এর সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার সুলতান আহমাদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ সিরাজুল হক, অর্থ সম্পাদক আলহাজ্জ গিয়াছুদ্দীন, সমাজকল্যাণ সম্পাদক মুহাম্মাদ নাযিমুদ্দীন, দফতর সম্পাদক অধ্যাপক মুবীনুল ইসলাম, মহানগর ‘যুবসংঘ’-এর সাংগঠনিক সম্পাদক মামূন বিন রুস্তম, প্রচার সম্পাদক মোকাম্মাল, রাজশাহী কলেজ শাখার অর্থ সম্পাদক আরীফুল ইসলাম প্রমুখ ।

যুবসংঘ

গোপালপুর, মোহনপুর, রাজশাহী ২৩ ডিসেম্বর’১২ রবিবার : অদ্য বাদ আছর গোপালপুর আহলেহাদীছ জামে মসজিদে এক সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। ‘আহলেহাদীছ যুবসংঘ’ রাজশাহী-উত্তর সাংগঠনিক যেলার সভাপতি মুহাম্মাদ মুস্তাকীম-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন ‘যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় অর্থ সম্পাদক আব্দুল হালীম। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মৌগাছি এলাকা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি জনাব নিযামুদ্দীন, সহ-সভাপতি মাওলানা ময়েযুদ্দীন প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সঞ্চালক ছিলেন ‘যুবসংঘ’ রাজশাহী-উত্তর সাংগঠনিক যেলার সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আশরাফুল ইসলাম।

রামপুর-পূর্বপাড়া, বাগমারা, রাজশাহী ৪ জানুয়ারী’১৩ শুক্রবার : অদ্য বাদ মাগরিব রামপুর-পূর্বপাড়া আহলেহাদীছ জামে মসজিদে এক সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। অত্র মসজিদের সভাপতি জনাব মুজীবুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সমাবেশে প্রধান  অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ‘যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় অর্থ সম্পাদক আব্দুল হালীম। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ‘যুবসংঘে’র রাজশাহী-উত্তর সাংগঠনিক যেলার সহ-সভাপতি মুহাম্মাদ মুহসিন।

মহিলা সংস্থা

(১) রঘুনাথপুর, পিরোজপুর, ৭ ডিসেম্বর শুক্রবার : অদ্য বেলা ১১-টায় ‘আহলেহাদীছ মহিলা সংস্থা’ রঘুনাথপুর শাখার উদ্যোগে যেলার নাজিরপুর উপযেলার  রঘুনাথপুর গ্রামে শেখ শামসুল হকের বাড়ীতে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মুহাম্মাদ কাবীরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক  হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রয় মজলিসে শূরা সদস্য ও পিরোজপুর যেলা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি অধ্যাপক মুহাম্মাদ আব্দুল হামীদ।

(২) সমসপুর, বাগমারা, রাজশাহী ২৫ ডিসেম্বর’১২ মঙ্গলবর : অদ্য বাদ যোহর সমসপুর শাখার উদ্যোগে বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব জনাব মুহাম্মাদ আকবর আলীর সভাপতিত্বে তাঁর বাড়ীতে এক মহিলা সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ‘যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় অর্থ সম্পাদক আব্দুল হালীম। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ‘যুবংঘে’র রাজশাহী-উত্তর সাংগঠনিক যেলার সহ-সভাপতি মাওলানা মুহাম্মাদ মুহসিন ও সমসপুর হাফেযিয়া মাদরাসার শিক্ষক হাফেয মুহাম্মাদ বেলালুদ্দীন।

মৃত্যু সংবাদ

(১) ‘বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় কাউন্সিল সদস্য, সাবেক কেন্দ্রীয় সাহিত্য ও পাঠাগার সম্পাদক মুহাম্মাদ রবীউল ইসলামের পিতা? মেহেরপুর শহর শাখা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি মুহাম্মাদ শওকত হোসেন (৮৭) গত ১৪ নভেম্বর রোজ বুধবার বেলা ১টা ৩০ মিনিটে নিজ বাসভবনে মৃত্যুবরণ করেছেন। ইন্নালিল্লা-হি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজেঊন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ৫ ছেলে ও ৪ মেয়ে রেখে গেছেন। উল্লেখ্য, মৃত্যুর পূর্বে তাঁর দু’টি কিডনিই বিকল হয়ে গিয়েছিল। একই দিন রাত ১০-টায় শহরের শামসুযযোহা পার্কে তাঁর ছালাতে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। তাঁর অছিয়ত অনুযায়ী আমীরে জামা‘আত-এর অনুপস্থিতিতে তাঁর অনুমতিক্রমে জানাযায় ইমামতি করেন ‘আন্দোলন’-এর কেন্দ্রীয় সেক্রেটারী জেনারেল অধ্যাপক মাওলানা নূরুল ইসলাম। অন্যান্যের মধ্যে জানাযায় উপস্থিত ছিলেন সাবেক সংসদ সদস্য মাস‘ঊদ অরুন, মেহেরপুরের পৌর মেয়র আলহাজ্জ মো‘তাছিম বিল্লাহ, ‘যুবসংঘ’-এর কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রশীদ আখতার সহ যেলা ও এলাকা ‘আন্দোলন’ এবং ‘যুবসংঘ’-এর দায়িত্বশীলবৃন্দ ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। তাকে স্থানীয় শেখপাড়া গোরস্থানে দাফন করা হয়।

(২) ‘আহলেহাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’ গাইবান্ধা-পূর্ব সাংগঠনিক যেলার উপদেষ্টা ও মাসিক আত-তাহরীক-এর একজন ভক্ত পাঠক নাযীর হোসায়েন সরদার (৭৯) গত ৯ জানুয়ারী রোজ বুধবার ভোর ৫-টায় গাইবান্ধা যেলার সাঘাটা থানাধীন ধনারুহা গ্রামের নিজ বাসভবনে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। ইন্নালিল্লা-হি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজেঊন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ৩ ছেলে ও ৪ মেয়ে রেখে গেছেন। ঐ দিন বিকাল ৪-টায় তাঁর নিজ গ্রাম ধনারুহায় ছালাতে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। জানাযায় ইমামতি করেন গাইবান্ধা-পূর্ব যেলা ‘আন্দোলন’-এর সভাপতি মাওলানা ফযলুর রহমান। অন্যান্যের মধ্যে জানাযায় উপস্থিত ছিলেন যেলা ও এলাকা ‘আন্দোলন’ ও ‘যুবসংঘ’-এর দায়িত্বশীলবৃন্দ ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। তাঁকে পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হয়।

[আমরা তাঁদের রূহের মাগফিরাত কামনা করছি এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারবর্গের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।- সম্পাদক]